প্রবাসীদের ঈদের আনন্দ

সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে শেয়ার করুন

প্রবাসীদের ঈদের আনন্দ – লেখক নয়ন হোসেন:

জীবন যোদ্ধা – পরিবার প্রিয়জনদের ভালো রাখার জন্য নিজের হাজারো কষ্ট যে বুকে ভিতরে লুকিয়ে রাখে তাদের প্রবাসী বলা হয়ে থাকে। প্রবাস জীবনটা বড়ই নিষ্টুর। তাই যদি না হয় তাহলে মুসলিম ধর্মের সবথেকে বড় উৎসব ঈদ। এই ঈদেও তারা পরিবারকে ছাড়া হাজার হাজার মাইল দূরে থাকতেন না। বুকের মাঝে পাহাড় সমান কষ্ট নিয়ে হাসিমুখে ভরে রাখতেন না। সারা দেশের মানুষ যখন ঈদের আনন্দে কর্মস্থল থেকে বাড়ি ফিরতে ব্যস্ত তখনই প্রবাসীরা ব্যস্ত (জোরদার) তাদের কর্মের উপর। সামনে ঈদ পরিবারকে এই মাসে বাড়তি টাকা পাঠাতে হবে। হাড়ভাঙা পরিশ্রম করে একটুখানী স্বাধীনতা, রোমাঞ্চকর হতেও দেখা মিলে নিঃসঙ্গতা, নিরবময় এই জীবনের মানুষগুলো। এরা প্রবাসী, আর এটায় প্রবাস জীবন কারও দুঃখ কেউ বুঝতে চেষ্টা করে না। নিজের দুঃখ নিজে অন্তরে রেখে নীরবে কান্না করতে হয়। অথচ এই রেমিটেন্স যোদ্ধাদের দেওয়া টাকায় হাসি ফুটে একটা পরিবারের সকল সদস্যদের। আবর অন্যদিকে উন্নয়নের অবকাঠামো বাড়িয়ে দিচ্ছে রেমিটেন্সের মাধ্যমে দ্বারা। কিন্তু দিনশেষে কী হয় তাদের!! কেমন কাটে তাদের ঈদসহ নানা উৎসবের দিন গুলো। কতটা দূরে পরিবার প্রিয়জনদের ছাড়া। কি অনূভুতি তাদের মাঝে। হাজার হাজার মাইল দূরের এই প্রবাস নামের জীবনের ঈদের এই আনন্দঘন মুহূর্তে দেশে থাকা স্বজনদের কথা বারবার মনে পড়াটায় স্বাভাবিক । যেহেতু তারা দিনশেষে সেই প্রবাসী তাই তাদের আনন্দগুলো বছরের পর বছর এভাবেই অপূর্ণ থেকে যায়। আবার অনেকে বিশেষ করে মালয়েশিয়া, ইতালি, সৌদি, ডুবাই, সিঙ্গাপুর এসব দেশে অবস্থানরত প্রবাসীরা মনের আনন্দ সবার মাঝে ভাগ করতে বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে ( ফেসবুক, টুইটার,ইন্সটাগ্রাম, ইউটিউবে) ঈদের শুভেচ্ছা বার্তা জানিয়ে থাকে। অপরদিকে প্রবাসীদের ঈদের আনন্দমুখর করে তুলতে প্রতিটি দেশের সরকার বিভিন্ন ধরনের পদক্ষেপ গ্রহন করে থাকে। শহরের প্রাণকেন্দ্র গুলো বিভিন্ন মাধ্যমে সাজানো হয়। পার্কের আয়োজনটা বিশেষ এই উৎসব- আনন্দের দিনে ভিন্ন রুপ নেয়। তারপরও কী প্রবাসীরা পরিবারকে ভূলে সেই আনন্দকে আপন করে বরণ করে নিতে পারে। কখনোই সম্ভব না। হাজার হাজারো সুখের মধ্যেও প্রিয় মুখগুলোর থেকে দূরে থাকা কতটা কষ্টকর সেটা তারাই ভালো জানে। তবে সবার ক্ষেত্রে আবার এক নাও হতে পারে। দীর্ঘদিন ধরে যারা প্রবাসে আছেন তারা খানিকটা হলেও নিজেদের সামলে নিতে পারেন। কিন্তু পরিবারের সঙ্গে ঈদ উদযাপন আসলে ভিন্ন রকম অনুভূতি। প্রবাসী অনেকে নতুন পোশাক পড়ে ফেসবুকে ছবি দিয়ে লিখেন ঈদ মানেই আনন্দ, ঈদ মানেই খুশি, তবে আত্মীয়-স্বজনদের ছেড়ে ঈদ উদযাপন করা সত্যিই কষ্টের। বিশেষ এই দিনে মা ও সন্তানদের খুব মনে পড়ছে। সবার জীবনেই উৎসবহীন দিন রয়েছে – যার মধ্যে প্রবাসীদের জীবন একটু বেশি এই দিনগুলো থাকে। তারপরও তাদের চাওয়া ভালো থাকুক প্রিয় পরিবার। নিজেদের হাজার কষ্টের পরও অটুট থাকুক পরিবারের আনন্দ।

লেখক মোঃ নয়ন হোসেন। শিক্ষার্থী, সরকারী বীরশ্রেষ্ঠ নূর মোহাম্মদ ডিগ্রি কলেজ, শার্শা, যশোর। মেইল-nayansardar6590@gmail.com

ফেসবুক মন্তব্য করুন

সর্বশেষ সংবাদ



» ফতুল্লা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে প্রবীণ সাংবাদিক নুরুল ইসলাম নুরু’র জন্মদিন পালন

» কোরবানির বাজার ধরতে প্রস্তুত ঝিকরগাছার “লাল বাদশা”

» সোনারগাঁয়ে ৩৬ কেজি গাঁজাসহ ২ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

» ফতুল্লায় ট্রাক ও ইজিবাইকের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ১

» বাংলাদেশ নিজের পায়ে ভর দিয়ে দাঁড়িয়ে আছে: শামীম ওসমান

» কলারোয়া পৌর প্রেসক্লাবের কমিটি’র সভাপতি সরদার ইমরান ও সম্পাদক জুলফিকার আলী

» শার্শায় কিশোরীদের সচেতনতা মূলক প্রশিক্ষণ ও উপকরণ বিতরণ

» হজে গিয়ে ভিক্ষার ঘটনায় গ্রেফতার ১ বাংলাদেশি

» ট্রেনে কাটা পড়ে কলেজ শিক্ষার্তী নিহত

» আমতলীতে ফারিয়ার মানবন্ধন ও প্রতিবাদ কর্মসূচী পালন

প্রকাশক : মো:  আবদুল মালেক
সম্পাদক : সো‌হেল আহ‌ম্মেদ
নির্বাহী সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
উপদেষ্টা সম্পাদক : রফিকুল্লাহ রিপন
বার্তা সম্পাদক : ফয়সাল আহম্মেদ
সহ-বার্তা সম্পাদক : সেলিম হাওলাদার
editor.kuakatanews@gmail.com

প্রধান কার্যালয় : সৌদি ভিলা- চ ৩৫/৫ উত্তর বাড্ডা,
গুলশান, ঢাকা- ১২১২।
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : সেহাচর, তক্কারমাঠ রোড, ফতুল্লা, নারায়ণগঞ্জ।
ফোন : +৮৮ ০১৯৭৪ ৬৩২ ৫০৯, ০১৬৭৪৬৩২৫০৯
বার্তা : + ৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯।

Email : ujjibitobd@gmail.com

Desing & Developed BY RL IT BD
আজ : মঙ্গলবার, ৫ জুলাই ২০২২, খ্রিষ্টাব্দ, ২১শে আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

প্রবাসীদের ঈদের আনন্দ

সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে শেয়ার করুন

প্রবাসীদের ঈদের আনন্দ – লেখক নয়ন হোসেন:

জীবন যোদ্ধা – পরিবার প্রিয়জনদের ভালো রাখার জন্য নিজের হাজারো কষ্ট যে বুকে ভিতরে লুকিয়ে রাখে তাদের প্রবাসী বলা হয়ে থাকে। প্রবাস জীবনটা বড়ই নিষ্টুর। তাই যদি না হয় তাহলে মুসলিম ধর্মের সবথেকে বড় উৎসব ঈদ। এই ঈদেও তারা পরিবারকে ছাড়া হাজার হাজার মাইল দূরে থাকতেন না। বুকের মাঝে পাহাড় সমান কষ্ট নিয়ে হাসিমুখে ভরে রাখতেন না। সারা দেশের মানুষ যখন ঈদের আনন্দে কর্মস্থল থেকে বাড়ি ফিরতে ব্যস্ত তখনই প্রবাসীরা ব্যস্ত (জোরদার) তাদের কর্মের উপর। সামনে ঈদ পরিবারকে এই মাসে বাড়তি টাকা পাঠাতে হবে। হাড়ভাঙা পরিশ্রম করে একটুখানী স্বাধীনতা, রোমাঞ্চকর হতেও দেখা মিলে নিঃসঙ্গতা, নিরবময় এই জীবনের মানুষগুলো। এরা প্রবাসী, আর এটায় প্রবাস জীবন কারও দুঃখ কেউ বুঝতে চেষ্টা করে না। নিজের দুঃখ নিজে অন্তরে রেখে নীরবে কান্না করতে হয়। অথচ এই রেমিটেন্স যোদ্ধাদের দেওয়া টাকায় হাসি ফুটে একটা পরিবারের সকল সদস্যদের। আবর অন্যদিকে উন্নয়নের অবকাঠামো বাড়িয়ে দিচ্ছে রেমিটেন্সের মাধ্যমে দ্বারা। কিন্তু দিনশেষে কী হয় তাদের!! কেমন কাটে তাদের ঈদসহ নানা উৎসবের দিন গুলো। কতটা দূরে পরিবার প্রিয়জনদের ছাড়া। কি অনূভুতি তাদের মাঝে। হাজার হাজার মাইল দূরের এই প্রবাস নামের জীবনের ঈদের এই আনন্দঘন মুহূর্তে দেশে থাকা স্বজনদের কথা বারবার মনে পড়াটায় স্বাভাবিক । যেহেতু তারা দিনশেষে সেই প্রবাসী তাই তাদের আনন্দগুলো বছরের পর বছর এভাবেই অপূর্ণ থেকে যায়। আবার অনেকে বিশেষ করে মালয়েশিয়া, ইতালি, সৌদি, ডুবাই, সিঙ্গাপুর এসব দেশে অবস্থানরত প্রবাসীরা মনের আনন্দ সবার মাঝে ভাগ করতে বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে ( ফেসবুক, টুইটার,ইন্সটাগ্রাম, ইউটিউবে) ঈদের শুভেচ্ছা বার্তা জানিয়ে থাকে। অপরদিকে প্রবাসীদের ঈদের আনন্দমুখর করে তুলতে প্রতিটি দেশের সরকার বিভিন্ন ধরনের পদক্ষেপ গ্রহন করে থাকে। শহরের প্রাণকেন্দ্র গুলো বিভিন্ন মাধ্যমে সাজানো হয়। পার্কের আয়োজনটা বিশেষ এই উৎসব- আনন্দের দিনে ভিন্ন রুপ নেয়। তারপরও কী প্রবাসীরা পরিবারকে ভূলে সেই আনন্দকে আপন করে বরণ করে নিতে পারে। কখনোই সম্ভব না। হাজার হাজারো সুখের মধ্যেও প্রিয় মুখগুলোর থেকে দূরে থাকা কতটা কষ্টকর সেটা তারাই ভালো জানে। তবে সবার ক্ষেত্রে আবার এক নাও হতে পারে। দীর্ঘদিন ধরে যারা প্রবাসে আছেন তারা খানিকটা হলেও নিজেদের সামলে নিতে পারেন। কিন্তু পরিবারের সঙ্গে ঈদ উদযাপন আসলে ভিন্ন রকম অনুভূতি। প্রবাসী অনেকে নতুন পোশাক পড়ে ফেসবুকে ছবি দিয়ে লিখেন ঈদ মানেই আনন্দ, ঈদ মানেই খুশি, তবে আত্মীয়-স্বজনদের ছেড়ে ঈদ উদযাপন করা সত্যিই কষ্টের। বিশেষ এই দিনে মা ও সন্তানদের খুব মনে পড়ছে। সবার জীবনেই উৎসবহীন দিন রয়েছে – যার মধ্যে প্রবাসীদের জীবন একটু বেশি এই দিনগুলো থাকে। তারপরও তাদের চাওয়া ভালো থাকুক প্রিয় পরিবার। নিজেদের হাজার কষ্টের পরও অটুট থাকুক পরিবারের আনন্দ।

লেখক মোঃ নয়ন হোসেন। শিক্ষার্থী, সরকারী বীরশ্রেষ্ঠ নূর মোহাম্মদ ডিগ্রি কলেজ, শার্শা, যশোর। মেইল-nayansardar6590@gmail.com

ফেসবুক মন্তব্য করুন

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



Click Here




সর্বশেষ সংবাদ



সর্বাধিক পঠিত



About Us | Privacy Policy | Terms & Conditions | Contact Us

প্রকাশক : মো:  আবদুল মালেক
সম্পাদক : সো‌হেল আহ‌ম্মেদ
নির্বাহী সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
উপদেষ্টা সম্পাদক : রফিকুল্লাহ রিপন
বার্তা সম্পাদক : ফয়সাল আহম্মেদ
সহ-বার্তা সম্পাদক : সেলিম হাওলাদার
editor.kuakatanews@gmail.com

প্রধান কার্যালয় : সৌদি ভিলা- চ ৩৫/৫ উত্তর বাড্ডা,
গুলশান, ঢাকা- ১২১২।
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : সেহাচর, তক্কারমাঠ রোড, ফতুল্লা, নারায়ণগঞ্জ।
ফোন : +৮৮ ০১৯৭৪ ৬৩২ ৫০৯, ০১৬৭৪৬৩২৫০৯
বার্তা : + ৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯।

Email : ujjibitobd@gmail.com

© Copyright BY উজ্জীবিত বাংলাদেশ

Design & Developed BY Popular IT BD