ফতুল্লায় হাজারো মানুষের বিষফোঁড়া!

সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে শেয়ার করুন

অপরিকল্পিতভাবে আবাসিক এলাকায় গড়ে উঠা একটি শিল্পপ্রতিষ্ঠানের কারনে ফতুল্লার হোসাইনীনগর এলাকায় বসবাসরত হাজারো মানুষের বিষফোঁড়ার কারন হয়ে দাড়িয়েছে। এমনকি প্রতিষ্ঠানের আশে পাশে গড়ে উঠা বাড়ীওয়ালাদের তাদের পৈত্রিক ভিটা বাড়ী বিক্রি করার জন্য নানা ভাবে চাঁপ প্রয়োগ করা হচ্ছে বলেও উঠেছে অভিযোগ। পরিবেশ অধিদপ্তরের নিষেধাক্কা থাকা স্বত্ত্বেও কিভাবে একটি আবাসিক এলাকায় শিল্পপ্রতিষ্ঠান গড়ে তুলা সম্ভব এমন প্রশ্ন সাধারন মানুষের? সাধারন মানুষ জানতে চায়, কুটির ছেলে মাছুমের খুঁটির জোড় কোথায়? সে কোন খুটিঁর জোড়ে সাধারন মানুষের জীবন অতিষ্ট করে তুলছে? প্রভাবশালী এ প্রতিষ্টানের স্বত্ত্বাধিকার মাছুম আবাসিক এলাকায় শিল্প প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলার কারনে আশাপাশে থাকা বসবাসরত সাধারন মানুষ অসহনীয় যন্ত্রনার মধ্য দিয়ে দিনানিপাত করছে। এদিকে, গার্মেন্টের আশে পাশে বসবাসরাত স্থানীয় বাড়ীর মালিকদের পৈত্রিক সম্পত্তি যে কোন বিনিময়ে ক্রয় করার জন্যই ঘাড়ত্যাড়া মাছুম এমনটা করছেন বলে এলাকাবাসী জানান। ফতুল্লার হোসাইনি নগর এলাকায় অবস্থিত আরজি ফ্যাশনের স্বত্ত্বাধিকার কুটি মিয়ার ছেলে মাছুমের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক, জেলা পুলিশ সুপার, র‌্যাব-১১ এবং জেলা পরিবেশ অধিদপ্তরের হস্তক্ষেপ চেয়ে শারদিন আক্তার লিপি নামের এক ভোক্তভোগি মহিলা লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। ২৯ নভেম্বর (মঙ্গলবার) সকালে বিভিন্ন দপ্তরে উল্লেখিত এ অভিযোগ জানানো হয়েছে।

 

লিখিত অভিযোগে শারদিন আক্তার লিপি জানান, ফতুল্লার হোসাইনি নগর এলাকায় তার স্বামীর পৈত্রিক সূত্রে পাওয়া সম্পত্তিতে বাড়ী নির্মানের মাধ্যমে পরিবার নিয়ে দীর্ঘদ বছর ধরে বসবাস করে আসছেন। গত এক (০১) বছর পূর্বে আর.জি.ফ্যাশনের মালিক কুটি মিয়ার ছেলে মাছুম তাদের বসবসরাত ভিটে বাড়ী ক্রয় করার জন্য আগ্রহ প্রকাশ করেন। আমরা পৈত্রিক সম্পত্তি ব্রিক্রিতে অপরাগতা জানালে ক্ষিপ্ত হয়ে উঠেন মাছুম এবং যে কোন ভাবে বাড়ী বিক্রিতে বাধ্য করবেন বলেও হুমকি প্রদান করেন মাছুম। আমাদের পৈত্রিক বাড়ীটি বিক্রি করার জন্য স্থানীয় ক্যাডারদের দিয়ে বিভিন্ন হুমকি ধামকি প্রদান করেও কোন কাজ না হওয়ায় এবার ভিন্ন কৌশল বেছে নিয়েছেন মাছুম। মাছুমসহ তার লোকজন আমার বিল্ডিংয়ের পাশেই আর.জি.ফ্যাশন নামক একটি রপ্তানিমুখী শিল্প-প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলেন এবং আমার বিল্ডিংয়ের প্রতিটি রুমের জানালা বরাবর এডজাষ্ট ফ্যান লাগানো হয়ে। শিল্পপ্রতিষ্ঠানের উচ্চ ক্ষমতাসর্ম্পূন্ন এডজাষ্ট ফ্যান লাগানোর ফলে বাড়ীতে থাকাটাই এখন আমাদের জন্য দুর্বিসহ হয়ে উঠেছে। এমনকি আর.জি.ফ্যাশনের ওয়েষ্টিজ ঝুঁট এবং ময়লা আর্বজনাও বাড়ীর গেইটের সামনে ফেলে রাখা হয় বলেও তিনি অভিযোগে উল্লেখ্য করেন। উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন বহিঃনির্গাপন ফ্যানের কারনে প্রতিষ্ঠানের ময়লা আর্বজনা রুমের ভিতরে প্রবেশ করার ফলে বাসায় থাকা ছোট ছোট বাচ্চারা শ্বাসকষ্ট জনিত সমস্যার পাশাপাশি বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন বলেও জানানো হয়।

 

ফতুল্লার হোসাইনিনগর এলাকার বাসিন্দা মনির হোসেন জানান, কুটি মিয়ার ছেলে মাছুম, পরিবেশ অধিদপ্তরের অনুমতি ছাড়াই আবাসিক এলাকায় শিল্পপ্রতিষ্ঠান গড়ে তুলেছেন। এ কারনে আশে পাশের মানুষের জীবন চরম হুমকির মধ্যে রয়েছে। একদিকে প্রতিষ্ঠানের মেশিনের উচ্চ শব্দ অপরদিকে প্রতিষ্ঠানের আর্বজনা পাশের বাড়ীর রুমে গিয়ে ডাষ্টবিনে পরিনত হচ্ছে। আবাসিক এলাকায় অপরিকল্পিতভাবে গড়ে উঠা প্রতিষ্ঠানের কারনে মানুষের স্বাভাবিক জীবন অসহনীয় পর্যায়ে চলে এসেছে। সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষ জন-মানব এলাকা থেকে এ ধরনের অনুমতিবিহীন শিল্পপ্রতিষ্টান বন্ধসহ মাছুমের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিবেন এমনটাই প্রত্যাশা করেন তিনিসহ স্থানীয় এলাকাবাসী। অন্যথায়, দুর্বিসহ যন্ত্রনার মধ্যদিয়ে জীবন অতিবাহিত করা এলাকাবাসী সম্মিলিতভাবে রাস্তায় বেড় হয়ে প্রতিবাদ করা এখন সময়ের দাবি হয়ে দাড়িয়েছে বলে হুশিয়ারী উচ্চারন করেন।

 

নারায়ণগঞ্জ পরিবেশ অধিদপ্তরের (উপ-পরিচালক) আব্দুল্লাহ আল মামুন লিখিত অভিযোগের বিষয়ে বলেন, উল্লেখিত ব্যাপারে অভিযোগ পেয়েছি। পরিবেশ অধিদপ্তরের লোকজন সরজমিনে বিষয়টি পরিদর্শন করবেন। কারন, শিল্পপ্রতিষ্ঠানের জন্য এলাকা নির্ধারন করা রয়েছে। জন সাধারনের স্বাভাবিক জীবন ব্যহত হয় এমনস্থানে শিল্পপ্রতিষ্ঠান গড়ে তুলর অনুমোদন আমাদের কার্য্যলয় থেকে দেয়া হয়নি। আমরা পরিদর্শন শেষে প্রতিষ্টানের যাবতীয় কাগজাদি পরীক্ষা-নিরীক্ষার পরই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ফেসবুক মন্তব্য করুন

সর্বশেষ সংবাদ



» যৌতুক মামলায় আর্থিক দন্ডপ্রাপ্ত হয়েও সরকারী চাকুরীতে বহাল তবিয়তে প্রধান শিক্ষিকা

» গাজীপুর আইনজীবী সমিতির নির্বাচনে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেন এডভোকেট শামসুল হক

» ৬ষ্ঠ বছরে পদার্পণ উপলক্ষ্যে নারায়ণগঞ্জ অনলাইন প্রেসক্লাবের অভিষেক অনুষ্ঠিত

» মৌলভীবাজারে দৈনিক গণমুক্তি‘র প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত

» বুড়িগঙ্গা নদী থেকে অজ্ঞাত যুবকের লাশ উদ্ধার

» ফতুল্লায় ইয়াবা ট্যাবলেটসহ শান্ত ও বাবু গ্রেফতার

» আমতলীতে ৪০০ গ্রাম গাঁজা এবং ১০ পিস ইয়াবাসহ আটক ৩ কারবারী

» ফতুল্লায় যমুনা ডিপো গেইট থেকে তেলসহ চুরি হওয়া ট্যাকলড়ী কাচপুরে উদ্ধার

» ফতুল্লায় লঞ্চের ধাক্কায় ট্রলার চালক নিহত

» সাংবাদিকের বাবা-মায়ের উপর হামলা, রক্তাক্ত জখম

প্রকাশক : মো:  আবদুল মালেক
সম্পাদক : সো‌হেল আহ‌ম্মেদ
নির্বাহী সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
উপদেষ্টা সম্পাদক : রফিকুল্লাহ রিপন
বার্তা সম্পাদক : ফয়সাল আহম্মেদ
সহ-বার্তা সম্পাদক : সেলিম হাওলাদার
editor.kuakatanews@gmail.com

প্রধান কার্যালয় : সৌদি ভিলা- চ ৩৫/৫ উত্তর বাড্ডা,
গুলশান, ঢাকা- ১২১২।
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : সেহাচর, তক্কারমাঠ রোড, ফতুল্লা, নারায়ণগঞ্জ।
ফোন : +৮৮ ০১৯৭৪ ৬৩২ ৫০৯, ০১৬৭৪৬৩২৫০৯
বার্তা : + ৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯।

Email : ujjibitobd@gmail.com

Desing & Developed BY RL IT BD
আজ : বুধবার, ১ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, খ্রিষ্টাব্দ, ১৮ই মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ফতুল্লায় হাজারো মানুষের বিষফোঁড়া!

সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে শেয়ার করুন

অপরিকল্পিতভাবে আবাসিক এলাকায় গড়ে উঠা একটি শিল্পপ্রতিষ্ঠানের কারনে ফতুল্লার হোসাইনীনগর এলাকায় বসবাসরত হাজারো মানুষের বিষফোঁড়ার কারন হয়ে দাড়িয়েছে। এমনকি প্রতিষ্ঠানের আশে পাশে গড়ে উঠা বাড়ীওয়ালাদের তাদের পৈত্রিক ভিটা বাড়ী বিক্রি করার জন্য নানা ভাবে চাঁপ প্রয়োগ করা হচ্ছে বলেও উঠেছে অভিযোগ। পরিবেশ অধিদপ্তরের নিষেধাক্কা থাকা স্বত্ত্বেও কিভাবে একটি আবাসিক এলাকায় শিল্পপ্রতিষ্ঠান গড়ে তুলা সম্ভব এমন প্রশ্ন সাধারন মানুষের? সাধারন মানুষ জানতে চায়, কুটির ছেলে মাছুমের খুঁটির জোড় কোথায়? সে কোন খুটিঁর জোড়ে সাধারন মানুষের জীবন অতিষ্ট করে তুলছে? প্রভাবশালী এ প্রতিষ্টানের স্বত্ত্বাধিকার মাছুম আবাসিক এলাকায় শিল্প প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলার কারনে আশাপাশে থাকা বসবাসরত সাধারন মানুষ অসহনীয় যন্ত্রনার মধ্য দিয়ে দিনানিপাত করছে। এদিকে, গার্মেন্টের আশে পাশে বসবাসরাত স্থানীয় বাড়ীর মালিকদের পৈত্রিক সম্পত্তি যে কোন বিনিময়ে ক্রয় করার জন্যই ঘাড়ত্যাড়া মাছুম এমনটা করছেন বলে এলাকাবাসী জানান। ফতুল্লার হোসাইনি নগর এলাকায় অবস্থিত আরজি ফ্যাশনের স্বত্ত্বাধিকার কুটি মিয়ার ছেলে মাছুমের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসক, জেলা পুলিশ সুপার, র‌্যাব-১১ এবং জেলা পরিবেশ অধিদপ্তরের হস্তক্ষেপ চেয়ে শারদিন আক্তার লিপি নামের এক ভোক্তভোগি মহিলা লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। ২৯ নভেম্বর (মঙ্গলবার) সকালে বিভিন্ন দপ্তরে উল্লেখিত এ অভিযোগ জানানো হয়েছে।

 

লিখিত অভিযোগে শারদিন আক্তার লিপি জানান, ফতুল্লার হোসাইনি নগর এলাকায় তার স্বামীর পৈত্রিক সূত্রে পাওয়া সম্পত্তিতে বাড়ী নির্মানের মাধ্যমে পরিবার নিয়ে দীর্ঘদ বছর ধরে বসবাস করে আসছেন। গত এক (০১) বছর পূর্বে আর.জি.ফ্যাশনের মালিক কুটি মিয়ার ছেলে মাছুম তাদের বসবসরাত ভিটে বাড়ী ক্রয় করার জন্য আগ্রহ প্রকাশ করেন। আমরা পৈত্রিক সম্পত্তি ব্রিক্রিতে অপরাগতা জানালে ক্ষিপ্ত হয়ে উঠেন মাছুম এবং যে কোন ভাবে বাড়ী বিক্রিতে বাধ্য করবেন বলেও হুমকি প্রদান করেন মাছুম। আমাদের পৈত্রিক বাড়ীটি বিক্রি করার জন্য স্থানীয় ক্যাডারদের দিয়ে বিভিন্ন হুমকি ধামকি প্রদান করেও কোন কাজ না হওয়ায় এবার ভিন্ন কৌশল বেছে নিয়েছেন মাছুম। মাছুমসহ তার লোকজন আমার বিল্ডিংয়ের পাশেই আর.জি.ফ্যাশন নামক একটি রপ্তানিমুখী শিল্প-প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলেন এবং আমার বিল্ডিংয়ের প্রতিটি রুমের জানালা বরাবর এডজাষ্ট ফ্যান লাগানো হয়ে। শিল্পপ্রতিষ্ঠানের উচ্চ ক্ষমতাসর্ম্পূন্ন এডজাষ্ট ফ্যান লাগানোর ফলে বাড়ীতে থাকাটাই এখন আমাদের জন্য দুর্বিসহ হয়ে উঠেছে। এমনকি আর.জি.ফ্যাশনের ওয়েষ্টিজ ঝুঁট এবং ময়লা আর্বজনাও বাড়ীর গেইটের সামনে ফেলে রাখা হয় বলেও তিনি অভিযোগে উল্লেখ্য করেন। উচ্চ ক্ষমতা সম্পন্ন বহিঃনির্গাপন ফ্যানের কারনে প্রতিষ্ঠানের ময়লা আর্বজনা রুমের ভিতরে প্রবেশ করার ফলে বাসায় থাকা ছোট ছোট বাচ্চারা শ্বাসকষ্ট জনিত সমস্যার পাশাপাশি বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন বলেও জানানো হয়।

 

ফতুল্লার হোসাইনিনগর এলাকার বাসিন্দা মনির হোসেন জানান, কুটি মিয়ার ছেলে মাছুম, পরিবেশ অধিদপ্তরের অনুমতি ছাড়াই আবাসিক এলাকায় শিল্পপ্রতিষ্ঠান গড়ে তুলেছেন। এ কারনে আশে পাশের মানুষের জীবন চরম হুমকির মধ্যে রয়েছে। একদিকে প্রতিষ্ঠানের মেশিনের উচ্চ শব্দ অপরদিকে প্রতিষ্ঠানের আর্বজনা পাশের বাড়ীর রুমে গিয়ে ডাষ্টবিনে পরিনত হচ্ছে। আবাসিক এলাকায় অপরিকল্পিতভাবে গড়ে উঠা প্রতিষ্ঠানের কারনে মানুষের স্বাভাবিক জীবন অসহনীয় পর্যায়ে চলে এসেছে। সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষ জন-মানব এলাকা থেকে এ ধরনের অনুমতিবিহীন শিল্পপ্রতিষ্টান বন্ধসহ মাছুমের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিবেন এমনটাই প্রত্যাশা করেন তিনিসহ স্থানীয় এলাকাবাসী। অন্যথায়, দুর্বিসহ যন্ত্রনার মধ্যদিয়ে জীবন অতিবাহিত করা এলাকাবাসী সম্মিলিতভাবে রাস্তায় বেড় হয়ে প্রতিবাদ করা এখন সময়ের দাবি হয়ে দাড়িয়েছে বলে হুশিয়ারী উচ্চারন করেন।

 

নারায়ণগঞ্জ পরিবেশ অধিদপ্তরের (উপ-পরিচালক) আব্দুল্লাহ আল মামুন লিখিত অভিযোগের বিষয়ে বলেন, উল্লেখিত ব্যাপারে অভিযোগ পেয়েছি। পরিবেশ অধিদপ্তরের লোকজন সরজমিনে বিষয়টি পরিদর্শন করবেন। কারন, শিল্পপ্রতিষ্ঠানের জন্য এলাকা নির্ধারন করা রয়েছে। জন সাধারনের স্বাভাবিক জীবন ব্যহত হয় এমনস্থানে শিল্পপ্রতিষ্ঠান গড়ে তুলর অনুমোদন আমাদের কার্য্যলয় থেকে দেয়া হয়নি। আমরা পরিদর্শন শেষে প্রতিষ্টানের যাবতীয় কাগজাদি পরীক্ষা-নিরীক্ষার পরই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ফেসবুক মন্তব্য করুন

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



Click Here




সর্বশেষ সংবাদ



সর্বাধিক পঠিত



About Us | Privacy Policy | Terms & Conditions | Contact Us

প্রকাশক : মো:  আবদুল মালেক
সম্পাদক : সো‌হেল আহ‌ম্মেদ
নির্বাহী সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
উপদেষ্টা সম্পাদক : রফিকুল্লাহ রিপন
বার্তা সম্পাদক : ফয়সাল আহম্মেদ
সহ-বার্তা সম্পাদক : সেলিম হাওলাদার
editor.kuakatanews@gmail.com

প্রধান কার্যালয় : সৌদি ভিলা- চ ৩৫/৫ উত্তর বাড্ডা,
গুলশান, ঢাকা- ১২১২।
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : সেহাচর, তক্কারমাঠ রোড, ফতুল্লা, নারায়ণগঞ্জ।
ফোন : +৮৮ ০১৯৭৪ ৬৩২ ৫০৯, ০১৬৭৪৬৩২৫০৯
বার্তা : + ৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯।

Email : ujjibitobd@gmail.com

© Copyright BY উজ্জীবিত বাংলাদেশ

Design & Developed BY Popular IT BD