নারায়ণগঞ্জে সোনারগাঁ থানার ওসি ও এসআই সাধনের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা!

উজ্জীবিত বাংলাদেশ নিউজ:- নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও থানার অফিসার ইনচার্জ মোরশেদ আলম পিপিএম, এস.আই (সেকেন্ড অফিসার) সাধন বসাকের বিরুদ্ধে নারায়নগঞ্জ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত ‘ঘ’ অঞ্চলে মামলা দায়ের করেন সাবেক এমপির এপিএস ও যুবলীগ নেতা জাহিদুল ইসলাম স্বপন। আদালতে জাহিদুল ইসলাম স্বপনের পক্ষে মামলাটি পরিচালনা করেন মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক অ্যাড. খোকন সাহা, সোনারগাঁ থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি অ্যাড. সামসুল ইসলাম ভূইয়া, অ্যাড. আনোয়ার হোসেন, অ্যাড. জসিম উদ্দিন, অ্যাড. সাব্বির হোসেন সাগর, অ্যাড. আহসান উল্লাহ সজিব, অ্যাড. মুহাম্মদ মনির হোসেন, মোহাম্মদ দুলাল হোসেন। অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট অশোক কুমার দত্ত মামলাটি আমলে নিয়ে পুলিশ সুপার, নারায়নগঞ্জকে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন। তবে তদন্তকারী কর্মকর্তা সহকারী পুলিশ সুপারের নিচে হবে না। আদালত তার আদেশে বলেন, অভিযোগটি অত্যন্ত গুরুতর। ঘটনার বিস্তারিত তদন্ত হওয়া প্রয়োজন মর্মে আদালত মনে করে। আদালত ৬টি বিষয়ে সুস্পষ্ট তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন।

 

সোনারগাঁ থানা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি অ্যাডভোকেট সামসুল ইসলাম ভূইয়া সাবেক এমপির এপিএস জাহিদুল ইসলাম স্বপনের সকল আইনি সহায়তার দায়িত্ব নিয়েছেন। তিনি আজ আদালতে স্বপনের সকল দায়িত্ব নেন।

 

জানা গেছে, কোন প্রকার গ্রেফতারী পরোয়ানা, সমন বা অভিযোগ ছাড়াই আদালতের নির্দেশ অমান্য করে আল-মোস্তফার কাছ থেকে ৫০ লাখ টাকা নগদ উৎকোচ গ্রহন করে আল-মোস্তফার লাঠিয়াল হয়ে গ্রেফতার করে জাহিদুল ইসলাম স্বপন ও তার ভায়রা আলমগীর ও ভাগীনা বাবুলকে। গ্রেফতারের পর রাতে সাবেক এমপি কায়সার হাসনাতের এপিএস ও যুবলীগ নেতা জাহিদুল ইসলাম স্বপনকে বেধরক মারধর করেন, পরে চোঁখ বেধে লাঠি দিয়ে মারাত্মক ভাবে পিঠিয়ে আহত করেন অফিসার ইনচার্জ মোরশেদ আলম ও এসআই (সেকেন্ড অফিসার) সাধন বসাক। এস আই সাধন বসাক ও অফিসার ইনচার্জের মধ্যযুগীয় নির্যাতনে জ্ঞান হারিয়ে ফেললে ও অবস্থা সংকটাপন্ন হলে রাত ৩.৪০ মিনিটে সোনারগাঁ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করান। হাসপাতালের রেজিস্ট্রারে ভর্তি নং ২৬৪৯/৩। উপজেলা স্বাস্হ্য কমপ্লেক্স এর মেডিকেল অফিসার হ্যাপী দাস জাহিদুল ইসলাম স্বপনের প্রাথমিক চিকিৎসা করে হাসপাতালের রেজিস্ট্রারে পুলিশের নাম ও স্বপনকে শারিরীক নির্যাতনের কথা উল্লেখ করেন। এমনকি জাহিদুল ইসলাম স্বপনকে ক্রসফায়ারের ভয় দেখিয়ে, সারা দেশে একশ মামলা ও মাদক মামলা ফাসিয়ে পাগল করে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে ৫০ লক্ষ টাকা চাঁদা দাবি করেন সেকেন্ড অফিসার সাধন বসাক। পরে সোনারগাঁ থানা যুবলীগ নেতাদের মধ্যস্থতায় দুপরে ছাড়তে বাধ্য হয় পুলিশ।

 

সোনারগাঁও থানার অফিসার ইনচার্জ মোরশেদ আলম পিপিএমের মোবাইলে একাধিকবার ফোন করলেও তিনি তা রিসিভ করেন নি।

 

এ বিষয়ে সোনারগাঁ থানার এসআই ( সেকেন্ড অফিসার ) সাধন বসাকের মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, মামলা সর্ম্পকে আমরা কিছুই জানিনা এবং এ ঘটনার সাথে তিনি জড়িত নয় বলেও জানান।

Facebook Comments

সর্বশেষ সংবাদ



» মাশরাফি-মাহমুদউল্লাহর পারিশ্রমিক ৩৫ লাখ টাকা করে

» মেয়র প্রার্থীর মা স্ত্রী ও ভাইসহ ৫ জনকে পিটিয়ে হাসপাতালে পাঠালো নৌকার সমর্থকরা

» ঝিনাইদহের চাকলা পাড়ার আলোচিত মিনি পতিতালয় ও মাদকের গডফাদার এলাকাবাসীর অভিযোগ

» নষ্ট হচ্ছে ৫০ বিঘা জমির আবাদি ফসল, প্রতিকার চেয়ে সংবাদ সম্মেলন

» আপত্তিকর ভিডিও পোস্ট: অভিনেত্রী সানাই সুপ্রভা আটক

» ছবিতে কি বলে! তাহলে পলাশ সমর্থকদের জন্য কি চাদাঁবাজি জায়েজ ?

» গলাচিপায় ৭ লক্ষ ২৪ হাজার রেণু পোনা জব্দ

» র‌্যাব-৬ এর পৃথক দুটি অভিযানে গাঁজাসহ ২ মাদক ব্যবসায়ী আটক

» ১১ সদস্যের বিএসএফ প্রতিনিধি দল এখন বাংলাদেশে

» সেন্সরে আটকে গেল রণভীর-আলিয়ার চুমু

প্রকাশক : মো:  আবদুল মালেক
সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : কামাল হোসেন খান

উপদেষ্টা সম্পাদক : রফিকুল্লাহ রিপন

বার্তা সম্পাদক : মোঃ খোকন প্রধান

যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৯৭৪ ৬৩২ ৫০৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
News: ujjibitobd@gmail.com

Desing & Developed BY RL IT BD
আজ : সোমবার, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, খ্রিষ্টাব্দ, ৬ই ফাল্গুন ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

নারায়ণগঞ্জে সোনারগাঁ থানার ওসি ও এসআই সাধনের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা!

উজ্জীবিত বাংলাদেশ নিউজ:- নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও থানার অফিসার ইনচার্জ মোরশেদ আলম পিপিএম, এস.আই (সেকেন্ড অফিসার) সাধন বসাকের বিরুদ্ধে নারায়নগঞ্জ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত ‘ঘ’ অঞ্চলে মামলা দায়ের করেন সাবেক এমপির এপিএস ও যুবলীগ নেতা জাহিদুল ইসলাম স্বপন। আদালতে জাহিদুল ইসলাম স্বপনের পক্ষে মামলাটি পরিচালনা করেন মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক অ্যাড. খোকন সাহা, সোনারগাঁ থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি অ্যাড. সামসুল ইসলাম ভূইয়া, অ্যাড. আনোয়ার হোসেন, অ্যাড. জসিম উদ্দিন, অ্যাড. সাব্বির হোসেন সাগর, অ্যাড. আহসান উল্লাহ সজিব, অ্যাড. মুহাম্মদ মনির হোসেন, মোহাম্মদ দুলাল হোসেন। অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট অশোক কুমার দত্ত মামলাটি আমলে নিয়ে পুলিশ সুপার, নারায়নগঞ্জকে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন। তবে তদন্তকারী কর্মকর্তা সহকারী পুলিশ সুপারের নিচে হবে না। আদালত তার আদেশে বলেন, অভিযোগটি অত্যন্ত গুরুতর। ঘটনার বিস্তারিত তদন্ত হওয়া প্রয়োজন মর্মে আদালত মনে করে। আদালত ৬টি বিষয়ে সুস্পষ্ট তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন।

 

সোনারগাঁ থানা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি অ্যাডভোকেট সামসুল ইসলাম ভূইয়া সাবেক এমপির এপিএস জাহিদুল ইসলাম স্বপনের সকল আইনি সহায়তার দায়িত্ব নিয়েছেন। তিনি আজ আদালতে স্বপনের সকল দায়িত্ব নেন।

 

জানা গেছে, কোন প্রকার গ্রেফতারী পরোয়ানা, সমন বা অভিযোগ ছাড়াই আদালতের নির্দেশ অমান্য করে আল-মোস্তফার কাছ থেকে ৫০ লাখ টাকা নগদ উৎকোচ গ্রহন করে আল-মোস্তফার লাঠিয়াল হয়ে গ্রেফতার করে জাহিদুল ইসলাম স্বপন ও তার ভায়রা আলমগীর ও ভাগীনা বাবুলকে। গ্রেফতারের পর রাতে সাবেক এমপি কায়সার হাসনাতের এপিএস ও যুবলীগ নেতা জাহিদুল ইসলাম স্বপনকে বেধরক মারধর করেন, পরে চোঁখ বেধে লাঠি দিয়ে মারাত্মক ভাবে পিঠিয়ে আহত করেন অফিসার ইনচার্জ মোরশেদ আলম ও এসআই (সেকেন্ড অফিসার) সাধন বসাক। এস আই সাধন বসাক ও অফিসার ইনচার্জের মধ্যযুগীয় নির্যাতনে জ্ঞান হারিয়ে ফেললে ও অবস্থা সংকটাপন্ন হলে রাত ৩.৪০ মিনিটে সোনারগাঁ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করান। হাসপাতালের রেজিস্ট্রারে ভর্তি নং ২৬৪৯/৩। উপজেলা স্বাস্হ্য কমপ্লেক্স এর মেডিকেল অফিসার হ্যাপী দাস জাহিদুল ইসলাম স্বপনের প্রাথমিক চিকিৎসা করে হাসপাতালের রেজিস্ট্রারে পুলিশের নাম ও স্বপনকে শারিরীক নির্যাতনের কথা উল্লেখ করেন। এমনকি জাহিদুল ইসলাম স্বপনকে ক্রসফায়ারের ভয় দেখিয়ে, সারা দেশে একশ মামলা ও মাদক মামলা ফাসিয়ে পাগল করে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে ৫০ লক্ষ টাকা চাঁদা দাবি করেন সেকেন্ড অফিসার সাধন বসাক। পরে সোনারগাঁ থানা যুবলীগ নেতাদের মধ্যস্থতায় দুপরে ছাড়তে বাধ্য হয় পুলিশ।

 

সোনারগাঁও থানার অফিসার ইনচার্জ মোরশেদ আলম পিপিএমের মোবাইলে একাধিকবার ফোন করলেও তিনি তা রিসিভ করেন নি।

 

এ বিষয়ে সোনারগাঁ থানার এসআই ( সেকেন্ড অফিসার ) সাধন বসাকের মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, মামলা সর্ম্পকে আমরা কিছুই জানিনা এবং এ ঘটনার সাথে তিনি জড়িত নয় বলেও জানান।

Facebook Comments

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ সংবাদ



সর্বাধিক পঠিত



প্রকাশক : মো:  আবদুল মালেক
সম্পাদক : মো: সো‌হেল অাহ‌ম্মেদ

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : কামাল হোসেন খান

উপদেষ্টা সম্পাদক : রফিকুল্লাহ রিপন

বার্তা সম্পাদক : মোঃ খোকন প্রধান

যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৯৭৪ ৬৩২ ৫০৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা এবং বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৬৭৪ ৬৩২ ৫০৯।
News: ujjibitobd@gmail.com

© Copyright BY দৈনিক উজ্জীবিত বাংলাদেশ

Design & Developed BY Popular IT BD