ফতুল্লার নন্দলালপুরে সোর্স আসিফ’র অত্যাচারে অতিষ্ঠ এলাকাবাসী

সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে শেয়ার করুন

উজ্জীবিত বাংলাদেশ নিউজ:- নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লা থানাধীন পাগলা পশ্চিম নন্দলালপুর এলাকায় পুলিশের সোর্স পরিচয় দিয়ে বিভিন্ন অপকর্ম করে দাবরিয়ে বেড়াচ্ছে আসিফ । তার অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে পরেছে এলাকার জনসাধারন।

 

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায় পাগলা পশ্চিম নন্দলালপুর এলাকায় মৃত সম্ভুর ছেলে সোর্স আসিফ। রবিবার বেলা ১২ টার সময় পেচা রনির স্ত্রী মাদক সম্রাজ্ঞী পপির বাসা থেকে তিনজন মহিলা রাস্তা দিয়ে যাবার পথে সোর্স আসিফ তাদের আটক করে।  পরে মহিলাদের নিয়ে উক্ত এলাকর চান মিয়ার বাড়ীতে ভিতরে নিয়ে যায় ঘরের দরজা বন্ধ করে পুলিশ পরিচয়ে ভয় দেখিয়ে তাদের দেহ তল্লাশী করে বিপুল পরিমান ইয়াবা পায়। পরে তাদের থানার ভয় দেখিয়ে টাকা পয়সা ও মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নিয়ে তাদের ছেরে দেয় । তাদের যেনো কোন সমস্যা না হয় এর জন্য এলাকা থেকে গাড়ী বাড়া করে এলাকা থেকে বিদায় করে দেন এলাকার সোর্স পরিচয় দানকারী আসিফ।

 

এ খবর এলাকায় ছড়িয়ে পরলে সোর্স আসিফের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে আমাদের জানান মহিলাদের সাথে (২০ হাজার) পিস ইয়াবা পেয়েছে সে।  তখন তাকে প্রশ্ন করা হলো? পুলিশকে জানিয়েছে কিনা এমন কথার জবাবে তিনি বলেন আমি ফতুল্লা মডেল থানার উপ-পরিদর্শক কামরুল হাসান কে জানানোর পরেও তিনি আসে নাই।

 

পরবর্তীতে আমারা কামরুল হাসানের সাথে যোগাযোগ করে জানতে পারি সে কামরুলের কোনো সোর্স না এবং তিনি চিনেনও না। তারপর কামরুল হাসান এসে সোর্স আসিফ কে জিজ্ঞাস করলে আসিফ ১০০ পিস ইয়াবার কথা শিকার করে। তারপর কমরুল হাসান দুইদিনের মধ্যে ১শত পিস ইয়াবা ফেরত দেওয়ার শর্ত দিয়ে চলে যায়।

 

এলাকাবাসীর অভিযোগ সোর্স পরিচয়ে প্রতিনিয়ত যাকেতাকে ধরে চেক করে এইসব নামধারী পুলিশের সোর্সেরা জন্য অতিষ্ঠ হয়ে পরেছে এলাকাবাসী এইসব পুলিশের কাছে জানানোর পরেও কোনো ধরনের ব্যবস্থা নিচ্ছেন না তারা।এলাকাবাসী আরো বলেন আমরা থানায় গিয়ে দেখতে পাই সোর্সদের মাধ্যমে সেন্ট্রির কাজও করানো হয়। তাদের বিরুদ্ধে কথা বললে বিনা অপরাধে হয়রানীর শিকার হতে হয়। এই ব্যাপারে নারায়ণগঞ্জ পুলিশ সুপারে হস্তক্ষেপ কামনা করেন অত্র এলাকার সাধারণ জনগণ। সোর্স আসিফের শিকারকৃত (২০হাজার)পিস ইয়াবার ভয়েস রেকর্ডটি অত্র প্রতিবেদকের কাছে সংরক্ষিত আছে।

Facebook Comments

সর্বশেষ সংবাদ



» পতিতা ও মাদক ব্যবসা: সেই পাপিয়াকে যুব মহিলা লীগ থেকে বহিষ্কার

» চীনে নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ৬৪৮, আরও ৯৭ জনের মৃত্যু

» পতিতা ও মাদক ব্যবসা: পাপিয়ার বিরুদ্ধে যে সিদ্ধান্ত কেন্দ্রীয় যুব মহিলা লীগের

» বয়স চল্লিশ পেরোনো নারীরা ৫ চেকআপে নিশ্চিত থাকুন

» যুব মহিলা লীগের নেত্রী সেজে পতিতা ও মাদক ব্যবসা

» দুলাভাইয়ের ধর্ষণে ৮ মাসের অন্তঃসত্ত্বা শ্যালিকা

» তুলে নেয়া হচ্ছে সানি লিওনের পিঠের চামড়া

» প্রথমবারের মতো বাজারে আসছে ২০০ টাকার নোট

» কুয়াকাটায় পৌর মেয়রদের আঞ্চলিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত

» সাংবাদিক সুমন হত্যাচেষ্টায় আরও একজন গ্রেপ্তার




প্রকাশক : মো:  আবদুল মালেক
সম্পাদক : মো: সো‌হেল আহ‌ম্মেদ
সহ সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
উপদেষ্টা সম্পাদক : রফিকুল্লাহ রিপন
বার্তা সম্পাদক : কাজী আবু তাহের মো. নাছির
editor.kuakatanews@gmail.com

যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৯৭৪ ৬৩২ ৫০৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা : + ৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯ ,

বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৭১৪ ০৪৩ ১৯৮।
News: ujjibitobd@gmail.com

Desing & Developed BY RL IT BD
আজ : রবিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০, খ্রিষ্টাব্দ, ১০ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ফতুল্লার নন্দলালপুরে সোর্স আসিফ’র অত্যাচারে অতিষ্ঠ এলাকাবাসী

সংবাদটি গুরুত্বপূর্ণ মনে হলে শেয়ার করুন

উজ্জীবিত বাংলাদেশ নিউজ:- নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লা থানাধীন পাগলা পশ্চিম নন্দলালপুর এলাকায় পুলিশের সোর্স পরিচয় দিয়ে বিভিন্ন অপকর্ম করে দাবরিয়ে বেড়াচ্ছে আসিফ । তার অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে পরেছে এলাকার জনসাধারন।

 

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায় পাগলা পশ্চিম নন্দলালপুর এলাকায় মৃত সম্ভুর ছেলে সোর্স আসিফ। রবিবার বেলা ১২ টার সময় পেচা রনির স্ত্রী মাদক সম্রাজ্ঞী পপির বাসা থেকে তিনজন মহিলা রাস্তা দিয়ে যাবার পথে সোর্স আসিফ তাদের আটক করে।  পরে মহিলাদের নিয়ে উক্ত এলাকর চান মিয়ার বাড়ীতে ভিতরে নিয়ে যায় ঘরের দরজা বন্ধ করে পুলিশ পরিচয়ে ভয় দেখিয়ে তাদের দেহ তল্লাশী করে বিপুল পরিমান ইয়াবা পায়। পরে তাদের থানার ভয় দেখিয়ে টাকা পয়সা ও মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নিয়ে তাদের ছেরে দেয় । তাদের যেনো কোন সমস্যা না হয় এর জন্য এলাকা থেকে গাড়ী বাড়া করে এলাকা থেকে বিদায় করে দেন এলাকার সোর্স পরিচয় দানকারী আসিফ।

 

এ খবর এলাকায় ছড়িয়ে পরলে সোর্স আসিফের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে আমাদের জানান মহিলাদের সাথে (২০ হাজার) পিস ইয়াবা পেয়েছে সে।  তখন তাকে প্রশ্ন করা হলো? পুলিশকে জানিয়েছে কিনা এমন কথার জবাবে তিনি বলেন আমি ফতুল্লা মডেল থানার উপ-পরিদর্শক কামরুল হাসান কে জানানোর পরেও তিনি আসে নাই।

 

পরবর্তীতে আমারা কামরুল হাসানের সাথে যোগাযোগ করে জানতে পারি সে কামরুলের কোনো সোর্স না এবং তিনি চিনেনও না। তারপর কামরুল হাসান এসে সোর্স আসিফ কে জিজ্ঞাস করলে আসিফ ১০০ পিস ইয়াবার কথা শিকার করে। তারপর কমরুল হাসান দুইদিনের মধ্যে ১শত পিস ইয়াবা ফেরত দেওয়ার শর্ত দিয়ে চলে যায়।

 

এলাকাবাসীর অভিযোগ সোর্স পরিচয়ে প্রতিনিয়ত যাকেতাকে ধরে চেক করে এইসব নামধারী পুলিশের সোর্সেরা জন্য অতিষ্ঠ হয়ে পরেছে এলাকাবাসী এইসব পুলিশের কাছে জানানোর পরেও কোনো ধরনের ব্যবস্থা নিচ্ছেন না তারা।এলাকাবাসী আরো বলেন আমরা থানায় গিয়ে দেখতে পাই সোর্সদের মাধ্যমে সেন্ট্রির কাজও করানো হয়। তাদের বিরুদ্ধে কথা বললে বিনা অপরাধে হয়রানীর শিকার হতে হয়। এই ব্যাপারে নারায়ণগঞ্জ পুলিশ সুপারে হস্তক্ষেপ কামনা করেন অত্র এলাকার সাধারণ জনগণ। সোর্স আসিফের শিকারকৃত (২০হাজার)পিস ইয়াবার ভয়েস রেকর্ডটি অত্র প্রতিবেদকের কাছে সংরক্ষিত আছে।

Facebook Comments

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



Click Here




সর্বশেষ সংবাদ



সর্বাধিক পঠিত



About Us | Privacy Policy | Terms & Conditions | Contact Us

প্রকাশক : মো:  আবদুল মালেক
সম্পাদক : মো: সো‌হেল আহ‌ম্মেদ
সহ সম্পাদক : কামাল হোসেন খান
উপদেষ্টা সম্পাদক : রফিকুল্লাহ রিপন
বার্তা সম্পাদক : কাজী আবু তাহের মো. নাছির
editor.kuakatanews@gmail.com

যোগাযোগ: বাড়ী- ৫০৬/এ, রোড- ৩৫,
মহাখালী, ডি ও এইচ এস, ঢাকা- ১২০৬,
ফোন: +৮৮ ০১৯৭৪ ৬৩২ ৫০৯, ৯৮৯১৮২৫,
বার্তা : + ৮৮ ০১৭৩১ ৬০০ ১৯৯ ,

বিজ্ঞাপন : + ৮৮ ০১৭১৪ ০৪৩ ১৯৮।
News: ujjibitobd@gmail.com

© Copyright BY উজ্জীবিত বাংলাদেশ

Design & Developed BY Popular IT BD